অনলাইন নিউজপেপার সাইট ঢাকা, ২২শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৫ই জিলহজ্জ, ১৪৪১ হিজরী

ঈদের ধারাবাহিক ‘সুন্দরী বাঈদানী’

Print

বিনোদন ডেস্ক : কুসুমপুর গ্রামের নদীতে একটা বেদে বহর আসে। রঙগন সর্দারের দল। তারা গ্রামের মানুষদের নানান রকম চিকিৎসার সাথে সাথে তাবিজ বিক্রি করে, সিঙ্গা লাগায় এবং সাপের খেলা দেখায়। বেদে বহরের এক সুন্দরী তরুণীর নাম রূপসী। রূপসীর বয়স উনিশ, বাবা মা নেই। নানীর সাথে বেদে বহরে থাকে। রূপসীকে পছন্দ করে বেদে বহরের যুবক জুলহাস। কিন্তু জুলহাসের স্বভাব চরিত্র ভাল না। ইতিমধ্যে দুটো বিয়ে করেছে সে। রূপসীকে বিয়ে করার জন্য ওর নানীর কাছে প্রস্তাব দেয়। কিন্তু রূপসীর নানীও ওর কাছে আদরের নাতীকে বিয়ে দিতে রাজি না। জুলহাস হুমকি দেয় সে যে করেই হোক রূপসীকে বিয়ে করবে। মোবারক গ্রামের সৎ স্কুল মাষ্টার। অবিবাহিত। স্বভাব চরিত্রে খুবই খুতখুতে। তার সূচিবায়ু আছে সেই সাথে রগচটাও। যখনই কোন অন্যায় দেখে তখনই প্রচন্ড রেগে যায়। বিয়ের জন্য তার পরিবার হন্যে হয়ে পাত্রী খুজলেও মোবারক কোন মেয়েকেই পছন্দ না। একবার মেয়ে পছন্দ হলে মেয়ের পরিবার পছন্দ হয় না, আবার মেয়ের পরিবার পছন্দ হলে মেয়ে পছন্দ হয় না। তার উদ্দেশ্য পরিস্কার, সততা যেখানে নেই সেখানে সে সম্পর্ক করবে না। মূলত এই কারণেই তার বিয়ে করা হচ্ছে না। টিপু আলম মিলনের গল্পে নাটকটি নাট্যরূপ করেছেন জাকির হোসেন উজ্জ্বল ও পরিচালনা করেছেন ফরিদুল হাসান। এতে অভিনয় করেছেন আ খ ম হাসান, নাজিরা মৌ, জামিল হোসাইন, মিলন ভট্র, অলিউল হক রুমি, মাহমুদুল ইসলাম মিঠু ও আরো অনেকেই। প্রযোজনায় করেছেন মিড এন্টারপ্রইজ, প্রচারিত হবে ঈদের দিন থেকে সাত দিন রাত ১১.০৫মিনিটে বৈশাখী টিভিতে।




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload CAPTCHA.