ব্রেকিং নিউজ
Tuesday ২৬ March ২০১৯
  • :
  • :
অনলাইন নিউজপেপার সাইট ঢাকা, ১২ই চৈত্র, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ, ১৭ই রজব, ১৪৪০ হিজরী

কাশ্মীর সীমান্তে পাক-ভারত যুদ্ধের দামামা

Print

দৈনিক চিত্র প্রতিবেদক:
কাশ্মীরের আকাশে জঙ্গি বিমানের লড়াইয়ের মধ্য দিয়ে দক্ষিণ এশিয়ার পরমাণু শক্তিধর দুই প্রতিবেশী ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে যুদ্ধের দামামা বেজে উঠেছে। দুই দেশই পরস্পরের জঙ্গি বিমান ভূপাতিত করার পাল্টাপাল্টি দাবি করেছে। পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান আলোচনায় বসার আহ্বান জানালেও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর নীরবতা বাড়িয়ে তুলেছে টেনশন।

পাকিস্তান দাবি করেছে, বুধবার সকালে কাশ্মীরে তাদের নিয়ন্ত্রিত অংশে ভারতীয় দুটো মিগ-২১ জঙ্গি বিমানকে গুলি করে ভূপাতিত করেছে তারা। আটক করা হয়েছে ভারতীয় বিমানবাহিনীর এক বৈমানিককে।
অন্যদিকে ভারতের দাবি, তাদের আকাশসীমায় প্রবেশ করা একটি পাকিস্তানি এফ-১৬ জেট ফাইটারকে গুলি করে ভূপাতিত করেছে ভারতীয় বিমানবাহিনী। পাকিস্তানি বিমানটি পড়েছে কাশ্মীরের পাকিস্তানি অংশে। ওই আকাশযুদ্ধে ভারতীয় বিমানবাহিনীর একটি মিগ-২১ এবং পাইলট নিখোঁজ হয়েছে। এই পরিস্থিতিতে পাকিস্তান তাদের পুরো আকাশসীমায় বিমান চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে। ভারতও তাদের উত্তরাংশের নয়টি বিমানবন্দর বন্ধ রেখেছে। ফলে আন্তর্জাতিক রুটের বাণিজ্যিক ও যাত্রীবাহী বিমানগুলোকে বড় একটি এলাকা এড়িয়ে চলতে হচ্ছে।

কাশ্মীরকে নিজেদের ভূখণ্ড বলে দাবি করে আসা ভারত ও পাকিস্তান ভূস্বর্গ হিসেবে পরিচিত এই অঞ্চলটির দুটি অংশ শাসন করে আসছে। মাঝের কাল্পনিক সীমারেখার নাম তারা দিয়েছে ‘লাইন অব কন্ট্রোল’।
১৯৪৭ সালে দেশভাগের পর মোট চারবার যুদ্ধে জড়িয়েছে বৈরী দুই প্রতিবেশী দেশ, তার মধ্যে তিনবারই তাদের লড়াই হয়েছে কাশ্মীরকে কেন্দ্র করে। তবে ১৯৭১ সালের পর এই প্রথম দুই দেশ আকাশ যুদ্ধে জড়ালো বলে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে বিবিসি।

ভারত শাসিত কাশ্মীরের পুলওয়ামায় দুই সপ্তাহ আগে আত্মঘাতী হামলায় দেশটির সেন্ট্রাল রিজার্ভ পুলিশ ফোর্সের (সিআরপিএফ) ৪০ জনের বেশি জওয়ান নিহত হওয়ার পর দুই দেশের উত্তেজনা নতুন মাত্রা পায়। এরপর মঙ্গলবার ভোররাতে ভারতের বিমান বাহিনী নিয়ন্ত্রণ রেখা অতিক্রম করে পাকিস্তানের বালাকোটে সন্দেহভাজন জঙ্গি আস্তানা লক্ষ্য করে বোমাবর্ষণ করলে পরিস্থিতি নতুন মোড় নেয়। এর কয়েক ঘণ্টার মধ্যে নিয়ন্ত্রণ রেখা বরাবর অন্তত ৫০টি স্থানে ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের দিকে মর্টার শেল ছোড়ে পাকিস্তানি সৈন্যরা। তারপর মঙ্গলবার সকালে পাকিস্তানি জঙ্গি বিমানও ভারত নিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের রাজৌরি জেলায় নওশেরা সেক্টরে বোমাবর্ষণ করলে আকাশে শুরু হয় লড়াই।

ভারতকে শান্তি-সংলাপের আহ্বান পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর

সীমান্তে ভারতীয় বাহিনীর সঙ্গে কয়েক দফায় ‘শক্তি-সামর্থ্য দেখানোর’ পর পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান জাতির উদ্দেশে ভাষণ দিয়েছেন। এতে ভারতের নেতৃত্বকে সংলাপে বসার আহ্বান জানিয়েছেন তিনি। দক্ষিণ এশিয়ার পরাশক্তি হয়ে ওঠা ভারতকে সতর্ক করে ইমরান খান বলেন, যে অস্ত্র আপনাদের আছে, সে অস্ত্র আমাদেরও আছে। যুদ্ধ বেঁধে গেলে কিন্তু পরিস্থিতি কারোরই নিয়ন্ত্রণে থাকবে না। বুধবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে জাতির উদ্দেশে এ ভাষণ দেন ইমরান খান। এদিন সকালে নয়াদিল্লি দাবি করে, তারা পাকিস্তানের একটি এফ-১৬ যুদ্ধবিমান ভূপাতিত করেছে। আর ইসলামাবাদ দাবি করে, তারা ভারতের দু’টি যুদ্ধবিমান ভূপাতিত করেছে। আটক করেছে দুই পাইলটকেও। তারও আগে সীমান্তের আশপাশে কয়েক দফায় হামলা চালিয়েছে।




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload CAPTCHA.