অনলাইন নিউজপেপার সাইট ঢাকা, ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৫ই রবিউস-সানি, ১৪৪২ হিজরী

প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে শেষ হচ্ছে শারদীয় দুর্গোৎসব

Print

স্টাফ রিপোর্টার : আজ মহাদশমী। শুভ শক্তির বিজয় ঘটিয়ে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে আজ সোমবার শেষ হতে যাচ্ছে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসব দুর্গাপূজা। গত ২২ অক্টোবর মহালয়া দিয়ে শুরু হয় পূজার আনুষ্ঠানিকতা। এরপর একে একে ষষ্ঠী থেকে দশমী, সবগুলো তিথিতেই রাজধানীর পূজামণ্ডগুলো ছিল পূজারিদের বিনম্র প্রার্থনা আর নানান আনুষ্ঠানিকতায় পূর্ণ।

সোমবার দশমীর দিন সকাল ৭টায় পূজা শুরু হয়ে শেষ হয় ৮টা ৫১ মিনিটের মধ্যে। দশমীর ভোরে রাজধানীর মণ্ডপগুলোয় ছিল বিদায়ের বিষণ্ণ আবহ। সকালে দেবী অর্চনা শেষে বিভিন্ন মন্দিরে সিঁদুর খেলা ও আরতি নৃত্যে মেতে ওঠেন ভক্তরা। আয়োজনের অংশ হিসেবে হিন্দু সধবা নারীরা দেবীপ্রতিমাকে সিঁদুর পরিয়ে দেন। তারপর নিজেরা একে অন্যকে সিঁদুর পরান। একইসঙ্গে চলে মিষ্টিমুখ করানো, ছবি তোলা ও ঢাকের তালে তালে নাচ-গান। নানান বয়সী সনাতনীদের আনন্দ উৎসবে মন্দির প্রাঙ্গণ মুখর হয়ে ওঠে।

ঢাকা জেলা পুলিশের নির্দেশনা ও পূজা উদযাপন কমিটির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী করোনার কারণে এবার বিকাল ৩টা থেকে সন্ধ্যা ৭টার মধ্যে মা বিসর্জনের মাধ্যমে সমাপ্তি ঘটবে শারদীয় দুর্গোৎসবের।
এ বিষয়ে মহানগর সর্বজনীন পূজা কমিটির সাধারণ সম্পাদক বরুন ভূমিক নয়ন বলেন, এবার করোনার মধ্যে পূজা অত্যন্ত শান্তিপূর্ণভাবে পালিত হচ্ছে। কোথাও বড় ধরনের কোনো অঘটনের খবর পাওয়া যায়নি। বিকালে প্রতিমা বিসর্জনের মধ্য দিয়ে এই আয়োজন শেষ হবে। প্রতিমা বিসর্জনের সবগুলো রুটেই পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকছে বলে জানান তিনি। সবকিছু শান্তিপূর্ণভাবেই শেষ হবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।

ওদিকে গতকাল নবমীর রাতে শেষ সময়েও সাভার ও আশুলিয়ার মণ্ডপগুলোতে ব্যাপক লোকসমাগম ঘটে। মধ্যরাত পর্যন্ত মণ্ডপে নানা আনুষ্ঠানিকতা চলমান ছিল, পূজার মেলায় ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সব ধরণের মানুষের ভিড় ছিল।

সর্বজনীন পূজা কমিটি জানিয়েছে, এবার সারা বাংলাদেশে ৩০ হাজার ২৫৮টি পূজা মণ্ডপে দুর্গাপূজা অনুষ্ঠিত হচ্ছে, যা গত বছরের তুলনায় ৮৬৩টি বেশি। এর মধ্যে ঢাকা মহানগরে মণ্ডপের সংখ্যা ২৩৪টি। গত বছর এ সংখ্যা ছিল ২২৯টি।




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload CAPTCHA.

%d bloggers like this: