অনলাইন নিউজপেপার সাইট ঢাকা, ৭ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৫ই রবিউল-আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরী

ফের জার্মানির সামনে ব্রাজিল

Print

স্পোর্টস ডেস্ক: এবার কি খরা কাটাতে পারবে ব্রাজিল? নাকি দ্বিতীয়বারের মতো অলিম্পিকের সোনা জিতবে জার্মানির ফুটবল দল? বিশ্ব ফুটবলে অন্যতম সফল দুই দল- ব্রাজিল ও জার্মানি। দুই দল মিলে ফিফা বিশ্বকাপের শিরোপা নিয়েছে ৯ বার। ব্রাজিল ৫ ও জার্মানি ৪ বার। সর্বশেষ ২০১৪ সালে ব্রাজিলের মাটি থেকে বিশ্বকাপের শিরোপা নিয়ে যায় জার্মানি। সেবার সেমিফাইনালে ব্রাজিলকে ৭-১ গোলে বিধ্বস্ত করে জার্মানরা। বিশ্বকাপ ফুটবলে সেটাকে সবচেয়ে বড় ঘটনা বলা হয়। রিও-অলিম্পিকের আগে সোনার জন্য এ দুই দলকেই ফেভারিট ভাবা হচ্ছিল। ধারণা অনুযায়ী তারাই ফাইনালে উঠেছে। শনিবার বাংলাদেশ সময় রাত আড়াইটায় সোনা জয়ের লক্ষ্যে ফাইনালে নামবে তারা। এই লড়াইয়ের আগে ভিন্ন একটি প্রেক্ষাপট সামনে চলে আসছে। অলিম্পিক ফুটবলে অনূর্ধ্ব-২৩ দলের খেলা। এরচেয়ে বেশি বয়সী মাত্র তিনজন করে খেলোয়াড় খেলার সুযোগ পান। তবে ফাইনালের আগে ব্রাজিলের সামনে বিশ্বকাপে বড়দের হারের তিক্ত স্মৃতি। ২০১৪ সালে জার্মানির কাছে বিধ্বস্ত হয়েছিল ব্রাজিলের তরুণ খেলোয়াড়দের আদর্শরা। অলিম্পিকে তাই ছোটদের হারিয়ে সেই প্রতিশোধ তারা নিতে চায়। অধিনায়ক নেইমারের জন্য এটা বেশি গুরুত্ববহ। ২০১৪ বিশ্বকাপে তিনিই ছিলেন ব্রাজিলের অধিনায়ক। যদিও ইনজুরির কারণে জার্মানির বিপক্ষে সেমিফাইনালে তিনি খেলতে পারেননি। তবে ড্রেসিংরুমে বসে নিজ দলের বিধ্বস্ত হওয়া দেখতে হয় তাকে। এছাড়া ব্রাজিলের মধ্যে কাজ করছে অন্য আগুন। বিশ্বকাপে সফল হলেও এখন পর্যন্ত অলিম্পিকের সোনা জিততে পারেনি তারা। ১৯৮৪, ১৯৮৮ ও ২০১২ সালে তারা ফাইনালে উঠলেও হতাশ হয়ে ফিরতে হয়। সর্বশেষ ২০১২-লন্ডন অলিম্পিকের ফাইনালে মেক্সিকোর কাছে তারা হারে ২-১ গোলে। ওই ম্যাচে ছিলেন নেইমার। সেই নেইমার এখন জাতীয় দল ও অলিম্পিক দলের অধিনায়ক। দেশকে প্রথমবারের মতো অলিম্পিকের সোনা এনে দেয়ার প্রেরণা তার মধ্যে। এবারের শুরুটা মোটেও ভালো ছিল না ব্রাজিলের। গ্রæপপর্বের প্রথম দুই ম্যাচে তারা দক্ষিণ আফ্রিকা ও ইরাকের সঙ্গে গোলশূন্য ড্র করে। তবে ধীরেধীরে তারা খোলস থেকে বের হয়ে এসেছে। সেমিফাইনালে তারা হন্ডুরাসের জালে গোল উৎসব করেছে। ৬-০ গোলে হারাতে নেইমার একাই দুই গোল করার পাশাপাশি অন্য দুই গোলে সরাসরি সহযোগিতা করেন। ফর্মের তুঙ্গে এখন ব্রাজিল ও নেইমার। তবে জার্মানিও কম নয়। কোয়ার্টার ফাইনালে পর্তুগালকে ৪-০ গোলে হারিয়ে প্রমাণ দেন যোগ্যতার। তবে জার্মানি একীভুত হওয়ার পর অলিম্পিকে সোনা জিততে পারেনি। তবে এর আগে তারা একবার সোনা, একবার রূপা ও দুইবার ব্রোঞ্জ জিতেছে। তাদের একমাত্র শিরোপা ছিল ১৯৭৬ সালে। আর সর্বশেষ ১৯৮০ সালে মস্কো অলিম্পিকের ফাইনালে চেক প্রজাতন্ত্রের কাছে হেরে তারা রূপা জেতে। এর আগে তারা ব্রোঞ্জ জেতে ১৯৬৪ ও ১৯৭২ সালে। জার্মানি এবারের সেমিফাইনালে নাইজেরিয়াকে ২-০ গোলে হারিয়ে ফাইনালের টিকিট কেটেছে। নাইজেরিয়ার বিপক্ষে ম্যাচের নবম মিনিটেই এগিয়ে যায় জার্মানি। গোল করেন ক্লোস্টারম্যান। আর ম্যাচ শেষ হওয়ার এক মিনিট আগে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন পিটারসেন।




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Time limit is exhausted. Please reload CAPTCHA.

%d bloggers like this: